বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৬:১৮ অপরাহ্ন

টেক্সাসে আবারও বন্দুক হামলা, নিহত ৫

মৃদুভাষণ ডেস্ক :: যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে এক মাসের ব্যবধানে আবারও বন্দুক হামলার ঘটনা ঘটেছে।

মিডল্যান্ড ও ওডেসার মধ্যবর্তী এলাকায় ৩০ বছর বয়সী এক শ্বেতাঙ্গ বন্দুকধারীর এলোপাতাড়ি গুলিতে কমপক্ষে পাঁচজন নিহত হয়েছেন।

নির্বিচারে পথচারীদের ওপর গুলিবর্ষণের ঘটনায় বহু মানুষ আহত হন বলে জানায় পুলিশ। পরে গাড়ি ফেলে একটি ট্রাক নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় পুলিশের গুলিতে প্রাণ হারায় ওই হামলাকারী।

এর এক মাস আগে টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের এলপাসো শহরের সিয়েলো ভিস্তা শপিংমলে আরেক শ্বেতাঙ্গ বন্দুকধারীর এলোপাতাড়ি গুলিতে ২২ জন নিহত হয়েছেন।
গত ৩ আগস্ট স্থানীয় সময় বেলা পৌনে ১১টার দিকে এলপাসো শহরের সিয়েলো ভিস্তা শপিংমলে ওয়ালমার্টের একটি দোকানে ওই বন্দুক হামলা হয়।

ওই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে এক শ্বেতাঙ্গকে আটক করেছে পুলিশ। ওই ব্যক্তি একাই এ হত্যাকাণ্ড চালিয়েছেন। তার নাম প্যাট্রিক ক্রুসিয়াস (২১)।

সিসিটিভি ফুটেজে হামলাকারীর ছবি পাওয়া গেছে। তাতে দেখা গেছে, কালো টি-শার্ট পরে এ নৃশংস হামলা চালিয়েছেন তিনি। তার কানে প্রটেক্টর ও হাতে ছিল রাইফেল। মার্কিন সম্প্রচারমাধ্যমগুলোও একই ছবি প্রচার করেছে।

আটক ২১ বছর বয়সী সন্ত্রাসী প্যাট্রিক ক্রুসিয়াস ডালাস এলাকার অধিবাসী। পুলিশ বলছে, এ বিষয়ে আর কোনো হুমকি নেই বলে তারা ধারণা করছেন।

ক্ষমতায় আসার পর ডোনাল্ড ট্রাম্প ‘মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র শ্বেতাঙ্গদের দেশ’ বলে একটি ধারণা প্রতিষ্ঠা করার চেষ্টা করছেন, যেখানে অন্যান্য জাতিগোষ্ঠীর লোকজন অনাহুত। তার গৃহীত নীতির ফলে উগ্র শ্বেতাঙ্গ জাতীয়তাবাদীরা অ-শ্বেতাঙ্গদের বিরুদ্ধে হামলা চালাতে উসকানি পাচ্ছেন বলে বিশ্লেষকরা বলে মনে করে থাকেন।


© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত মৃদুভাষণ - ২০১৪
Design & Developed BY ThemesBazar.Com