রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, ০৩:০৮ অপরাহ্ন

শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে সেন্টমার্টিনে জাহাজ চলাচল

মৃদুভাষণ ডেস্ক :: টেকনাফ-সেন্টমার্টিন রুটে শুক্রবার থেকে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল শুরু হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার রাতে টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. রবিউল হাসান জাহাজ চলাচলের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান ২৬ অক্টোরব থেকে তিনটি জাহাজ চলাচলের অনুমতি পেয়েছে। ওই তিনটি জাহাজ হচ্ছে কেয়ারী সিন্দবাদ, কেয়ারী ক্লোজ এন্ড ডাইন, বে-ক্লুজ।

এদিকে প্রতি বছর অক্টোবর মাসের শুরু থেকে এ রুটে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল শুরু হলেও এবার একটু দেরি হয়েছে।

অপরদিকে নাফ নদীর বেশ কয়েকটি স্থানে ডুবুচর জেগে উঠায় জাহাজগুলোকে নাফ নদীর শূন্যরেখা পেরিয়ে মিয়ানমার অভ্যন্তর দিয়ে চলাচল করতে হবে বলে ধারনা করছেন জাহাজের নাবিকরা।

তথ্য সুত্রে জানা যায় উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে পর্যালোচনা করেই বৃহস্পতিবার থেকে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচলের অনুমতি দেয়া হয়েছে বলে জানান জাহাজ কর্তৃপক্ষ।

ঝুঁকি এড়াতে বিগত বছর জাহাজ গুলোতে যেভাবে আইনশৃংখলা বাহিনীর সদস্যরা নিয়োজিত থাকতেন এ বছরও সেই ধরনের ব্যবস্থা নেয়ার দাবী জানিয়েছেন দেশী-বিদেশী পর্যটকরা।

এব্যাপারে সেন্টমার্টিন দ্বীপের একজন ব্যবসায়ী বলেন, ঠিক সময়ে এ বছর জাহাজ চলাচলের অনুমতি না দিলে পর্যটন শিল্পে নেতিবাচক প্রভাব পড়তো। এতে বেকার হয়ে পড়তো পর্যটনের সঙ্গে জড়িত অন্তত লক্ষাধিক মানুষ। প্রসঙ্গত, প্রতিবছর অক্টোবর মাসের শুরুতে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন রুটে জাহাজ চলাচলের মধ্য দিয়ে পর্যটন মৌসুম শুরু হয় সেন্টমার্টিনে। এপ্রিল-মে মাস পর্যন্ত জাহাজগুলো চলাচল করে। এরপর বর্ষার পুরো সময়টা জাহাজ চলাচল বন্ধ থাকে।


© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত মৃদুভাষণ - ২০১৪
Design & Developed BY ThemesBazar.Com