বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০১৯, ০৬:২৭ অপরাহ্ন

আবুসিনা ছাত্রাবাসের ঐতিহ্য সংরক্ষণে জালালাবাদ এসোসিয়েশন

মৃদুভাষণ ডেস্ক :: আধ্যাত্মিক রাজধানী সিলেট নগরীর কেন্দ্রস্থলের দেড় শতাধিক বছর প্রাচীন স্থাপত্য ‘আবুসিনা ছাত্রাবাস ভবন’। ১৯১৪ থেকে ১৯১৮ সালে প্রথম বিশ্ব যুদ্ধকালে এই ভবন সেনা ছাউনি হিসাবে ব্যবহৃত হয়েছে।

ভবনটি মহান মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত।
১৯৭১ সালরে ৯ এপ্রিল দায়িত্ব পালনকালে পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে শহীদ বুদ্ধিজীবী প্রফেসর ডা. শামসুদ্দীন আহমদ, ডা. শ্যামল কান্তি লালা, নার্স মাহমুদুর রহমান, পিয়ন মো. মুহিবুর রহমান ও মোখলছুর রহমান, অ্যাম্বুলেন্স ড্রাইভার কোরবান আলী সহ মোট নয়জন নির্মমভাবে শহীদ হয়েছিলেন।

সম্প্রতি আদি-স্থাপত্যের এই ভবনটি ভেঙে সিলেট জেলা সদর হাসপাতালের জন্য ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট ১৫তলা ভবন নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

ঐতিহাসিক ও ঐতিহ‍্যমন্ডিত এই ভবন সংরক্ষণ করে বিকল্প-স্থানে হাসপাতাল ভবন নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া র জোর দাবি জানাচ্ছে জালালাবাদ এসোসিয়েশন।

এই প্রেক্ষিতে আজ ১৭.৫.২০১৯ জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সভাপতি সাবেক সচিব ডঃ এ কে আব্দুল মুবিন, সাবেক সভাপতি সি এম তোফায়েল সামী, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের জালালাবাদ ঐতিহ্য সংরক্ষণ কমিটির সভাপতি সাবেক সচিব সোহেল আহমদ চৌধুরী, সহ সভাপতি কাইয়ুম চৌধুরী, কোষাধ্যক্ষ ইমাম মেহেদী চৌধুরী এনাম, যুগ্ম সম্পাদক ফাহিমা চৌধুরী মনিসহ প্রতিনিধিদল সিলেট গমন করছেন।


© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত মৃদুভাষণ - ২০১৪
Design & Developed BY ThemesBazar.Com