ওসমানীনগরের রাজিয়ার অস্ত্রোপচারে ৪০ ব্যাগ রক্তের প্রয়োজন

../news_img/54818 mrin k.jpg

 জুবেল আহমদ সেকেল, ওসমানীনগর থেকে :: দেড় মন ওজনের পা নিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজের ৪র্থ তলার বার্ন ইউনিটে বেডে ভর্তি সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার গোয়ালাবাজার ইউপির এওলাতৈল গ্রামের হতদরিদ্র কৃষক মানিক মিয়ার স্ত্রী রাজিয়া বেগম(৪৫) এর পায়ে অস্ত্রোপচারের জন্য বি-পজেটিভ ৪০ ব্যাগ রক্তের প্রয়োজন। ঢাকা মেডিকেল কলেজের ব্লাড ব্যাংকে রক্ত সঞ্চিত হওয়ার পর আগামী সপ্তাহে তার পায়ে অস্ত্রোপচার করা হবে বলে জানিয়েছেন  ঢামেক বার্ন ইউনিটের সম্বনয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন।

বিরল রোগে আক্রান্ত হত দরিদ্র রাজিয়ার পরিবারের পক্ষে ৪০ ব্যাগ রক্ত ক্রয় করা সম্ভব নয়। তাই স্বেচ্ছায় রক্তদানকারীরা রাজিয়ার প্রাণ বাঁচাতে রক্ত দিয়ে মানবিক সহায়তার হাত প্রসারিত করতে দেশবাসীর কাছে রাজিয়ার পরিবার পক্ষ থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক ও গণমাধ্যমে আবেদন জানানো হয়। এর প্রক্ষিতে ইতিমধ্যে ২০জন রক্ত দাতা রক্ত দেবার আশ্বাস প্রদান করেছেন বলে জানেিয়ছেন অসুস্থ রাজিয়ার ভাই ইসলাম উদ্দিন। এছাড়া রক্ত ও আর্থিক অনুদান প্রদান করবেন বলে যুক্তরাজ্য আ’লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ওসমানীনগরে অধিবাসী আনোযারুজ্জামন চৌধুরী এবং বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সিলেটের কৃতি সন্তান জাকির হোসেনও রাজিয়ার পরিবারের সাথে যোগাযোগ করেছেন।

রাজিয়ার স্বামী মানিক মিয়া বলেন, ১৮ বছর আগে দ্বিতীয় মেয়ের জন্মের সময় আমার স্ত্রীর ডান পা ফুলে যায়। পা ফুলতে-ফুলতে এখন ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। স্ত্রীর চিকিৎসা করাতে গিয়ে ইতিমধ্যে ভিটামাটি হারিয়েছি। বর্তমানে তাকে ঢাকা মেডিকেলে ভর্তি করা হলে অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর চিকিৎসকরা তার পায়ে অপারেশন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। জটিল এই অপারেশনে ৪০ ব্যাগ রক্তের প্রয়োজন। এতো রক্ত ক্রয় করার সামর্থ নেই আমাদের।
রাজিয়ার ছোট ভাই ইসলাম উদ্দিন বলেন, হতদরিদ্র বোন রাজিয়ার জীবন বাঁচাতে দেশবাসীর নিকট পত্রিকা ও ফেসবুকের মাধ্যমে আবাদেন জানানোর পর সিলেটর ২০জন  হৃদয়বান ব্যক্তি ২০ ব্যাগ রক্ত দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। বাকী রক্তের জন্য আরো হৃদয়বান মানুষ এগিয়ে এলে আমার বোনের অপারেশনটা হয়ে যেতো। রক্তদাতা স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন গুলোকে প্রয়োজনে(০১৭৯৬-৪১৮২৫৬) মোবাইল নাম্বারে যোগাযোগের অনুরোধ জানান তিনি।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের সমন্বয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন জানান, রাজিয়ার পায়ের রোগ নির্ণয়ে সরকারী খরচে একাধিক পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর আমরা এই জটিল অস্ত্রোপচারের জন্য  প্রস্তুতি নিচ্ছি। তার পায়ে অস্ত্রোপচার করতে হলে প্রায় ৪০ ব্যাগ রক্তের প্রয়োজন। সময় মতো রক্ত পাওয়া গেলে আগামী সপ্তাহে রাজিয়ার পায়ে অস্ত্রপচার করা হবে। অস্ত্রপচারের পর রাজিয়া সুস্থ হবার সম্ভাবনা আছে কিনা এক প্রশ্নে জবাবে তিনি আরো বলেন, একটি অপারেশনে সুফল হবে না একাধিক অপারেশন করলে আমা করি রাজিয়া সুস্থ হবা সম্ভাবনা রয়েছে।