বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিতের তিন অধ্যাপক ক্লাস নাইনের অঙ্ক পারলেন না

../news_img/54867 mrin k.jpg

মৃদুভাষণ  ডেস্ক :: বহু সময়েই খবরের শিরোনামে উঠে এসেছে ভারতের বিহারে শিক্ষা ব্যবস্থার দুরবস্থার ছবিটা। গত বছরই সামনে আসে ভুয়ো টপার রুবি রায়ের ঘটনা। 'পোলিটিক্যাল সায়েন্স পড়ে রান্না করতে শিখেছে' বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছিল সে।

এবার সামনে এল এরকমই আরও একটি ঘটনা। সামান্য ক্লাস নাইনের অঙ্কের সহজ সমাধান করতে পারলেন না বিহারের তিন জন অঙ্কের অধ্যাপক। আরেকজনকে আবার ট্রায়াঙ্গাল আঁকতে বলায়, তিনি লিখলেন 'ট্রাঙ্গাল' (Trangal)।

ঘটনাটি বিহারের মগধ ইউনিভার্সিটির। বিহারের অন্যতম বড় ও গুরুত্বপূর্ণ বিশ্ববিদ্যালয় এটি। বিশ্ববিদ্যালয়ের অঙ্ক বিভাগে অধ্যাপক পদে জন্য জারি করা হয় বিজ্ঞপ্তি। সেইসময় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বিশ্ববিদ্যালয়ের তিন অ্যাসোসিয়েট প্রফেসরকে একবার ইন্টারভিউ নেওয়া হবে। তাদেরকে ইন্টারভিউর জন্য ডাকে সিলেকশন কমিটি।

ইন্টারভিউতে দেখা যায়, তিনজনের কেউই সামান্য ক্লাস নাইনের অঙ্কেরও সমাধান করতে পারেননি। আরেকজন আবার 'ট্রায়াঙ্গাল' বানানটাও ভুল লেখেন। এর আগে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের পলিটিক্যাল সায়েন্সের এক শিক্ষক 'কনডোলেন্স' লিখতে গিয়ে লিখেছিলেন 'কনডোন'।