রোহিঙ্গা বস্তিতে লালসা মেটাতে গিয়ে যুবলীগ সভাপতি আটক

../news_img/56125mmm.jpg

মৃদুভাষণ ডেস্ক::মিয়ানমারে সেনা ও নিরাপত্তা বাহিনীর বর্বর নির্যাতনের মুখে জীবন ও নিজের সম্ভ্রম বাঁচাতে ঝুকি নিয়ে বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে কয়েক লাখ রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ। পালিয়ে আসা এসব অসহায় বাস্তুহারা রোহিঙ্গাদের দুর্বলতার সুযোগে নানা প্রলোভনে পুরুষদের নিকট থেকে শেষ সম্বলটুকু ছিনিয়ে নিচ্ছে স্থানীয় কতিপয় দুর্বৃত্ত। পাশাপাশি যৌন লালসার শিকার হচ্ছেন অনকে রোহিঙ্গা নারী ও যুবতী।

এরই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার রাতে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়নের থাইংখালী শফিউল্লাহ কাটা রোহিঙ্গা বস্তিতে আশ্রিত এক রোহিঙ্গা নারীকে ধর্ষণের চেষ্টা করে এক যুবক। এসময় আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা পালংখালী ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মাহাবুবুল আলমের ছেলে সোহারাব উদ্দিন ভুলু(৩০)কে হাতে নাতে আটক করে।

পরে তাঁকে শনিবার নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও সহকারি কমিশনার (ভূমি) নুরুদ্দিন মুহাম্মদ শিবলী নোমানের কার্যালয়ে হাজির করলে লম্পট ভুলুকে ১মাস ১৫দিনর সাজা প্রদান করে জেল হাজতে প্রেরণ করে।

পালংখালী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এম গফুর উদ্দিন বলেন, আটক ভুলু ইউনিয়নের যুবলীগের সভাপতি।

তিনি আরও বলেন, পালংখালী ইউনিয়নের কিছু অসাধুচক্র রোহিঙ্গাদের পুনবার্সনের জন্য বনভুমি দখল পূর্বক জায়গা বিক্রি করে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। অথচ এসব হুমড়া-চোড়ারা আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সামনে ঘুরাঘুরি করলেও তাদের আটক করছেনা।