‘গা বেঁচে তো আমার সংসার চালাতে হয় না’

../news_img/57163mmm.jpg

মৃদুভাষণ ডেস্ক::প্রায় এক দশক আগে লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগী ছিলেন ফারিয়া শাহরিন। সেই তকাম লাগিয়ে মিডিয়াতে আসেন এই সুন্দরী। তেমন নাটক বা বিজ্ঞাপনে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে না পারলেও নিয়মিতই তিনি আছেন মিডিয়ার সংবাদে। কৌশলী এই তথাকথিত মডেল পড়াশোনার জন্য মালশিয়াতে ছিলেন এতদিন।
সেখান থেকেই তিনি ঢাকাই মিডিয়ার শিরোনাম ছিলেন নানান ভাবে। কখনো ভক্তদের জন্য আবেদনময়ী ছবি পোষ্ট করে, কখনো বা সেই ছবির নিচে কমেন্টের সমালোচনা করে স্ট্যাটাস দিয়ে। বিভিন্ন সময় দেশীয় মডেলদের সমালোচনা করেও তিনি আলোচনায় থাকার ফন্দি করেন।

এদিকে এবারো একই তরিকায় ঢাকাই মিডিয়ার দৃষ্টি আকর্ষণ করলেন মডেল ফারিয়া শাহরিন। নিজের ছবিতে নিজেই বিব্রত কর ক্যাপশন দিয়ে বিপাকে ফারিয়া। যখন তার কমেন্ট সেকশনে নানান রকম আজে বাজে মন্তব্য আসতে থাকে তখন তিনি ক্ষেপে যান। এবং একটি স্ট্যাটাস দেন, যেখানে উদ্দেশ্য প্রণোদিত ভাবে আবার ঢাকাই মডেলদের সমালোচনা করেন।

গত মঙ্গলবার ফারিয়া যেই ছবিটি পোষ্ট করেন, তার ক্যাপশনে লিখেন ‘একজন স্বাস্থ্যবতী নারী’। সেটি দেখার পর প্রশংসার পাশাপাশি ফারিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে বেশ সমালোচনা হয়।

আর এই সমালোচনার জবাবে পরদিন বুধবার ফারিয়া ফেসবুকে লেখেন, ‘হ্যাঁ আমার কিছু ওজন বেড়েছে। যেহেতু পড়াশুনার জন্য আমি দেশের বাইরে থাকছি তাই রান্না করার সময় হয় না, নিজে তেমন রান্নাও পারি না। তাই প্রায় প্রতিদিনই জাঙ্কফুড খেতে হত। তাই এই ওজন বাড়াটা কোন আশ্চর্যজনক বিষয় নয়। হ্যা স্থুলতাকে আমি সমর্থন করছি না। কিন্তু এটা আমার জীবন। আমার যখন ইচ্ছে হবে তখন খাব, যখন ইচ্ছে হবে ডায়েট করব। মিডিয়ার কিছু মেয়ের মতক নিশুতি হওয়টা সম্ভব না। গা বেঁচে তো আমার ভাত খাওয়া লাগে না। সংসার ও চালাতে হয় না। এখন আমার সব ধ্যান জ্ঞান আমার ক্যারিয়ার নিয়ে।’

সম্প্রতি ফারিয়া দেশে ফিরে এসেছেন। একটি বেসরকারী টেলিভিশনে উপস্থাপনার কাজও শুরু করেছেন ফারিয়া।