আদালতে দাঁড়িয়ে বিষপানে আত্মহত্যা

../news_img/57447mmm.jpg

মৃদুভাষণ ডেস্ক::আদালতে দাঁড়িয়েই বিষপান করে আত্মহত্যা করলেন ৭২ বছর বয়সী স্লোবোদান প্রালিয়াক। বসনিয় ক্রোয়াট এক যুদ্ধাপরাধী দ্য হেগের আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে এ ঘটনা ঘটে। বিষ খাওয়ার পর হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়েছে। আদালতের কাঠগড়ায় দাঁড়িয়ে তিনি বিষ খেয়েছেন বলার পর আপিল কার্যক্রম স্থগিত করে দেওয়া হয়। দ্য হেগের আদালত ঘোষণা করে যে আদালত একটা ‘অপরাধ স্থলে পরিণত হয়েছে’।

যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে আদালতের কাঠগড়ায় সাবেক যে ছয়জন বসনিয় ক্রোয়াট রাজনৈতিক ও সামরিক নেতাকে তোলা হয়েছে তাদের একজন ছিলেন অভিযুক্ত স্লোবোদান প্রালিয়াক। ১৯৯২ থেকে ৯৫ পর্যন্ত বসনিয়ার যুদ্ধের সময় পূর্ব মোস্তার শহরে অপরাধের দায়ে ২০১৩ সালে তাকে বিশ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছিল।

আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের রায়ে তার কারাদণ্ড বহাল রাখার ঘোষণা শোনার পর সাবেক অধিনায়ক মি: প্রালিয়াক বিচারককে বলেন তিনি অপরাধী নন, তারপর তিনি একটি বোতল থেকে কিছু একটা পান করেন। পরে তিনি বলেন, ''আমি বিষ খেয়েছি''। 'গ্লাসটা সরাবেন না'

প্রালিয়াক উঠে দাঁড়ান এবং মুখের কাছে হাত তোলেন, মাথাটা পেছনদিকে এমনভাবে হেলান যাতে মনে হয় তিনি গেলাস থেকে তরল কিছু পান করছেন। বিচারকমণ্ডলীর সভাপতি সঙ্গে সঙ্গে আদালতের কার্যক্রম স্থগিত করে দেন এবং অ্যাম্বুলেন্স ডাকা হয়।

বিচারক বলেন, ''ঠিক আছে, আমরা স্থগিত...আমরা স্থগিত...দয়া করে পর্দা টেনে দিন। যে গ্লাস থেকে তিনি কিছু একটা পান করলেন সেটা কেউ সরাবেন না।'' পর্দা টেনে দেয়ার আগে আদালত কক্ষে একটা বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয় বলে জানান দ্য হেগে বিবিসির সংবাদদাতা অ্যানা হলিগান। পরে অ্যাম্বুলেন্স তাকে হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানেই মি: প্রালিয়াক মারা যান। বিবিসি