শচীনের মেয়ে সারাকে অপহরণের হুমকি

../news_img/58282mmm.jpg

মৃদুভাষণ ডেস্ক::ভারতীয় ক্রিকেট ঈশ্বর শচীন টেন্ডুলকারের ২০ বছর বয়সী মেয়ে সারা টেন্ডুলকারকে অপহরণের হুমকি দেওয়ার ঘটনায় হইচই পড়ে গেছে। দেবকুমার মাইতি নামের অভিযুক্ত ব্যক্তিকে ইতোমধ্যেই গ্রেফতার করেছে মুম্বাই পুলিশ।

শচীন টেন্ডুলকারের বাসভবনের ফোন নম্বরে ২০ বার কল দেওয়ার কথা স্বীকার করেছেন মাইতি। অশালীন ম্যাসেজ ও সারাকে অপহরণেরও হুমকি প্রদান করেন তিনি।

পুলিশের জেরার মুখে মাইতি বলেন, আমি ম্যাচ চলাকালীন টিভিতে প্যাভিলিয়নে বসে থাকতে দেখে তার (সারা টেন্ডুলকার) প্রেমে পড়ি…আমি তাকে বিয়ে করতে চাই। আমি টেন্ডুলকারের ল্যান্ডলাইন নম্বর সংগ্রহ করেছি এবং ২০ বার কল দিয়েছি…তাকে কখনোই সরাসরি দেখিনি।

সারা বান্দ্রা পুলিশ স্টেশনে অভিযোগ দায়ের করেন। পরিবারের দাবি, মানসিকভাবে বিকারগ্রস্ত ৩২ বছর বয়সী মাইতি এবং প্রায়ই নিজের মা-বাবাকে নির্যাতন করেন। স্কুল থেকে ঝরে পড়া এই ব্যক্তি কর্মহীন বেকার। থাকেন পশ্চিমবঙ্গের পূর্ব মেদিনীপুর জেলায়। সেখানকার মহিশাদাল গ্রাম থেকে তাকে আটক করে মুম্বাই পুলিশের স্পেশাল টিম।

কীভাবে টেন্ডুলকারের নম্বর পেল মাইতি তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। তার মানসিক অবস্থাও পরীক্ষা করে দেখবে মেডিকেল টিম।