অবশেষে হত্যা মামলা করেছে পরিবার, যারা আছে আসামীর তালিকায়

../news_img/60409 mrini.jpg

মৃদুভাষণ ডেস্ক: চট্টগ্রামের পতেঙ্গা সমুদ্র সৈকত থেকে উদ্ধার হওয়া স্কুলছাত্রী তাসফিয়া আমিনকে ‘হত্যা করা হয়েছে’- এই অভিযোগে তার প্রেমিক আদনান মির্জাকে প্রধান আসামি করে হত্যা মামলা করেছে পরিবার। মামলায় আসামি করা হয়েছে আরও পাঁচজনকে। বৃহস্পতিবার (৩ মে) দুপুরের দিকে তাসফিয়ার বাবা মোহাম্মদ আমিন বাদী হয়ে নগরের পতেঙ্গা থানায় এ মামলা করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে পতেঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কাশেম বলেন, ‘তাসফিয়ার কথিত বন্ধু আদনান মির্জাকে প্রধান আসামি করে ৬ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা করেছেন তার বাবা। মামলার অন্য আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে। এর আগে গতকাল আদনানকে গ্রেফতার করে পুলিশ।’

যদিও আজ সকালে নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (বন্দর) আরেফিন জুয়েল জাগো নিউজকে বলেন, ‘প্রাথমিক তদন্তে এটাকে হত্যা নয়, আত্মহত্যা বলেই মনে হচ্ছে। হয়ত প্রেমের স্বপ্নভঙ্গের হতাশা থেকে স্কুলছাত্রী তাসফিয়া আবেগের বশে পতেঙ্গা সৈকতে গিয়ে বিষপানে আত্মহত্যা করেছে।’

গতকাল বুধবার (২ মে) সকালে নগরের পতেঙ্গা সমুদ্র সৈকতের ১৮ নম্বর ব্রিজঘাট এলাকা থেকে নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী তাসফিয়া আমিনের মরদেহ উদ্ধার করে পতেঙ্গা থানা পুলিশ।