পরকিয়া প্রেম থেকেই নবীগঞ্জে বউ-শ্বাশুড়ি খুন খুনের সুত্রপাত, আটক ৫

../news_img/60639 mrini.jpg



এম,এ আহমদ আজাদ নবীগঞ্জ(হবিগঞ্জ) :: নবীগঞ্জে বউ-শাশুড়ি নির্মমভাবে খুন হয়েছেন। নিহতরা হচ্ছেন- উপজেলার কুর্শি ইউনিয়নের সাদুল­াপুর গ্রামে লন্ডন প্রবাসী মৃত রাজা মিয়ার স্ত্রী মালা বেগম (৫০) ও তার পুত্রবধূ রুমি বেগম (২২) নিহত এর ঘটনায় এপর্যন্ত ৭জন আটকের খরব পাওয়া গেছে। পুলিশ ৫জনকে আটকের কথা স্বীকার করলে বাকি ২ জনের কথা স্বীকার করেনি। এখনো থানায় কোন মামলা হয়নি। খুনের ঘটনায় সন্দেহভাজন হিসাবে আটককৃত ৪জন হচ্ছে সাদুল­াপুর গ্রামের ক্বারী আব্দুস সালাম (৬০), তার পুত্র শাহিদুর রহমান (৩৫), একই গ্রামের যুবক শুভ রহমান (৩০) ও আবু তালেব (২০)। পুলিশ বলছে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তাদের কাছে খুনের মোটিভ পাওয়া গেলে তাদেরকে গ্রেফতার দেখানো হবে।

নাম প্রকাশ না করে পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, নারী ঘটিত ব্যাপার থেকে খুনের ঘটনাটি সংঘটিত হয়েছে। নিহত রোমির ফেসবুক আইডির সুত্র ধরে ৫জনকে আটক করা হয়েছে। মামলার এজাহার তৈরীর কাজ চলছে। রাতেই মামলা দায়ের হবে। তিনি নিহত রোমি মৃত্যূর ৩০ মিনিট পূর্বে ফেসবুকে র্তা এক বন্ধুকে ছবি লেনদেন করে। তাই তার ফেসবুকের ইনবক্সে অনেক গুরুত্ব পূর্ন ম্যাসেজ পাওয়া গেছে।,তার সুত্রধরেই রোমির ঘনিষ্ট বন্ধু শুভ রহমান কে আটক করা হয়েছে। তিনি বলেন পরকিয়া প্রেম থেকেই খুনের সুত্রপাত বলে প্রাথমিক ধারনা পাওয়া গেছে।

নবীগঞ্জ বাহুবল সার্কেল এসপি পারভেজ আলম বলেন, আমরা হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটনের কাছাকাছি আছি। তদন্তের স্বার্থে অনেক কিছু এখন বলা যাবে না। এজাহার প্রস্তুত করা হয়েছে পরীক্ষা নিররেক্ষার পর রাতেই রের্কড করা হবে। হবিগঞ্জ পুলিশ সুপার বিধান ত্রিপুরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সাংবাদিকদের বলেন, কোন নিরাপরাধ লোককে আসামী করা হবে না। নিরপেক্ষ ভাবে তদন্ত করে আসল অপরাধিদের বাহির করা হবে। এব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ওসি এস,এম আতাউর রহমান বলেন, খুনের ঘটনাটি নিয়ে আমরা তদন্ত করছি এখনো কোন মোটিভ উদ্ধার হয়নি। তিনি আরো বলেন আমরা খবর পেয়ে রাতেই লাশ দুটি উদ্ধার করে হবিগঞ্জ মর্গে প্রেরন করেছি। আমরা ৫জনকে আটক করেছি এখনো জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। আমাদের ধারনা এখানেই খুনি রয়েছে। আশা করছি আজকে রাতের মধ্যে মুল মোটিভ উদ্ধার হবে। তিনি এক প্রশ্নের উত্তরে বলেন, নারীঘটিত ব্যাপার থেকে খুণের সম্ভাবনা রয়েছে।